সব কিছু
facebook channelkhulna.tv
খুলনা সোমবার , ৩১শে জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ , ১৪ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
রসে টই-টম্বুর সুস্বাদু কমলা চাষে হাসি ফুঁটেছে চুয়াডাঙ্গার কৃষক ওমর ফারুকের | চ্যানেল খুলনা

রসে টই-টম্বুর সুস্বাদু কমলা চাষে হাসি ফুঁটেছে চুয়াডাঙ্গার কৃষক ওমর ফারুকের

ফকির শহিদুল ইসলামঃরসে টই-টম্বুর সুস্বাদু কমলা চাষ হচ্ছে বাংলাদেশে। দেখতে চায়না কমলা-লেবুর মতো হলেও। স্বাদে খানিকটা এগিয়ে। ব্যতিক্রম স্বাদের এ কমলা চাষে হাসি ফুঁটেছে কৃষক ওমর ফারুকের মুখে। প্রতিদিন দলে দলে ভিড় করছে দর্শনার্থীরা। তাদের মতে, এই কমলা চাষ ছড়িয়ে পড়লে বিদেশ থেকে কমলা আমদানি করতে হবে না। গাছগুলোতে তারার মতো ধরে আছে হলুদ রঙের কমলা। আকারে ছোট কিন্তু রসে ভরা কড়া মিষ্টি। কৃষক ওমর ফারুক নিজেই জানেন না এটা কোন জাতের কমলা। তিনি নিজে নাম দিয়েছেন বাংলার কমলা। ৩৩ শতাংশের বাগানের প্রতিটি গাছে কমপক্ষে ৮৫ থেকে ৯০ কেজি কমলা ধরে ঝুলে রয়েছে।

ওমর ফারুকের কমলা বাগানটি ঝিনাইদহ জেলার সীমান্তবর্তী চুয়াডাঙ্গা জেলার জীবননগর উপজেলার মধ্যে নিধিকুন্ডু গ্রামের মাঠে। কৃষক ওমর ফারুকের ভাষ্য, এ জাতের কমলার চাষ করতে তিনি সকল কৃষকদের উৎসাহিত করছেন। তার আশা এ জাতের কমলা সারাদেশে চাষ হলে আর বিদেশ থেকে কমলা আমদানি করতে হবে না। তিনি বলেন তার ৩৩ শতাংশ জমির ১০০ টি গাছের কমলার বাগানে এ বছর যে কমলা আছে তা বিক্রি করলে যাবতীয় খরচবাদে কমপক্ষে ৭ লাখ টাকা আসবে। আর কলম দেয়া চারা অনেক তৈরি হলেও এ বছর বিক্রির উপযোগী চারা বিক্রি করে কমপক্ষে ১২ লাখ টাকা আসবে।

সরেজমিনে গিয়ে উৎসুক মানুষের ভিড় দেখা যায়। কথা হয় কৃষক ওমর ফারুকের সঙ্গে। তিনি জানান, গত ২০১৫ সালে খুলনায় এক বন্ধুর বাড়ি থেকে একটি কমলা গাছের ডাল কেটে এনে তিনি কলম করে ৮৫টি গাছের চারা উৎপাদন করেন। এরপর ২০১৬ সালে তিনি ৩৩ শতাংশ জমিতে এই ৮৫টি কমলা গাছ রোপন করেন ওই ক্ষেতেই মাল্টার চারা রোপন করেন আরো ১৫ টি। ২০১৮ সালে এই গাছগুলোতে এক একটিতে ৩৫-৪০ কেজির মতো কমলা ধরে। সেই কমলা তিনি ৮০-৮৫ টাকা দরে বিক্রি করেন। একই সঙ্গে তিনি ওই কমলা গাছের ডালে কলম পদ্ধতিতে প্রায় ৩০ হাজার কমলার চারা উৎপাদন করেছেন। যা প্রতিটি ১০০ টাকা দরে বিক্রি করছেন। ২০১৯ সালে তার বাগানের প্রতিটি গাছে ৮৫-৯০ কেজি করে কমলা ধরে আছে। ৮৫ টি কমলা গাছে প্রায় ৭ লাখ টাকার কমলা ধরে আছে।

ওমর ফারুক আরো জানান, গত ২ বছরে তার কাছ দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে কৃষকেরা এসে চারা নিয়ে বাগান করছেন। শুধু তারা এলাকাতেই কমপক্ষে ৯০ বিঘা জমিতে কমলার বাগান করেছেন। কমলাগুলো দেখতে খুব সুন্দর এবং খেতেও কড়া মিষ্টি। তিনি বর্তমানে ৯ বিঘা জমিতে চারা উৎপাদন করছেন। এই চারা দেশের বিভিন্ন জেলা ও উপজেলায় ছড়িয়ে দিতে চান তিনি।

ওমর ফারুক জানান, তার এ জাতের সুস্বাদু কমলা চাষ সারাদেশে ছড়িয়ে দিতে পারলে আর বিদেশ থেকে কমলা আমদানি করার প্রয়োজন হবে না। এমন সুস্বাদু বাংলার কমলা গুণগত মানের জন্য আরও বিদেশে রফতানি করা যাবে। ওমর ফারুকের ছেলে আকাশ মিয়া জানান, তাদের বাগানের যে কমলা উৎপাদন হচ্ছে তা বাজারের যে কমলা পাওয়া যায় তার চেয়ে কিছুটা বড়। এই কমলা বাগানের খবর পেয়ে দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে দর্শনার্থীরা কমলা ছুঁয়ে ছবি তুলতে আসছেন। আর প্রতিদিন দর্শনার্থী কিংবা চাষিরা এখান থেকে চারা কিনে নিয়ে যাচ্ছেন। আকাশ জানান, তাদের বাগানে প্রায় ৭ লাখ টাকার কমলা আছে। আমরা এবার এ কমলা গুলো বিক্রি করিনি। দর্শনার্থীরা আসছে তাদের অনেকের বাগান থেকে ছিড়ে কমলা খাওয়ানো হচ্ছে। তিনি বলেন, যারা কমলা বাগান করতে আগ্রহী তাদের সার্বিক সহযোগিতা ও পরামর্শ প্রদান করা হচ্ছে।

জীবননগর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শারমিন আক্তার জানান, কৃষক ওমর ফারুকের কমলার বাগানে তিনি একাধিকবার গিয়েছেন। যেভাবে কমলা ধরে আছে প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ ভিড় করছে বাগান দেখতে। ওই মাঠে গেলে মনে হচ্ছে একটা ছোট খাটো পর্যটন কেন্দ্র। তিনি বলেন, যে কমলা দেশে বর্তমানে চাষ হচ্ছে সেগুলোর চেয়ে এ কমলা স্বাদে অনেক ভালো। আর আমদানিকৃত কমলার চেয়ে এ কমলার রঙটাও আকর্ষনীয়। কৃষি অফিস তাকে সাধ্যমত সাহায্য করছে। নিঃসন্দেহে কৃষক ওমর ফারুক একজন সফল কৃষক বলে যোগ করেন এই কৃষি কর্মকর্তা।

সংবাদ প্রতিদিন আরও সংবাদ

৭০ নারীর অ্যাকাউন্টে জমা অর্থের তদন্ত চলছে

ঘূর্ণিঝড় আম্ফানে উপকূলীয় অঞ্চলের মানুষের দাবী “ত্রান নয়, টেকসই বেড়িবাঁধ চাই

কয়রার বাগালী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে রেজাউল ইসলাম এগিয়ে

খালিশপুর আলমনগের দেশীয় অস্ত্র ও ইয়াবাসহ যুবতী আটক

সুন্দরবন উপকূলের মানুষের প্রাণশক্তিই সবচেয়ে বড় শক্তি : জেলা প্রশাসক মোস্তফা কামাল

মাদরাসায় নিয়োগে অর্ধকোটি টাকা ঘুষ বাণিজ্যের অভিযোগ

চ্যানেল খুলনা মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন  
It’s An Sister Concern of Channel Khulna Media
© ২০১৮ - ২০২১ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | চ্যানেল খুলনা.টিভি
যোগাযোগঃ কেডিএ এপ্রোচ রোড (টেক্সটাইল মিল মোড়), নিউ মার্কেট, খুলনা।
ঢাকা অফিসঃ ২৬/১ শান্তিনগর, ট্রপিক্যাল রাজিয়া কমপ্লেক্স, ঢাকা-১২১৭।
ফোন- 09696-408030, 01704-408030, ই-মেইল: channelkhulnatv@gmail.com
গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের তথ্য মন্ত্রণালয়ের তালিকাভুক্তির জন্য আবেদিত।